,

গাইবান্ধায় বন্যা দুর্গতদের পাশে ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া

Gaibandha PHOTO-02সুমন কুমার বর্মন, গাইবান্ধা (সদর) প্রতিনিধি:

দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী বীর বিক্রম এমপি বলেন, বন্যা দুর্গত এলাকার একটি মানুষও খাদ্যাভাবে না খেয়ে মারা যাবে না। এছাড়া যাদের বাড়িঘর বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে তাদের পুনর্বাসনের ব্যবস্থাও করা হবে। প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা বন্যা কবলিত এলাকায় প্রয়োজনে ব্যাপক ত্রাণ তৎপরতা চালানোর নির্দেশ দিয়েছেন। সে মোতাবেক ত্রাণ তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে এবং থাকবে।

২রা আগষ্ট (মঙ্গলবার) গাইবান্ধা সদর উপজেলার বাদিয়াখালী ইউনিয়নের ফুলবাড়ি মাঠে বন্যা কবলিত মানুষের মধ্যে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণকালে দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, গাইবান্ধা জেলায় বন্যা দুর্গত মানুষের জন্য ইতোমধ্যে সরকার ৪০ লাখ টাকা ও ১ হাজার ৫০ মে. টন চালসহ বিভিন্ন ত্রাণ সামগ্রীর প্যাকেট বিতরণ করেছেন। এ জেলার দুর্গত মানুষের জন্য নতুন করে আরও ১০ লাখ টাকা এবং ১শ’ মে. টন চাল বরাদ্দ দেয়া হয়েছে বলে তিনি উল্লেখ করেন।
ত্রাণ বিতরণ পূর্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন গাইবান্ধা জেলা প্রশাসক মো. আব্দুস সামাদ।

এসময় বক্তব্য রাখেন জাতীয় সংসদের হুইপ মাহাবুব আরা বেগম গিনি এমপি, ত্রাণ ও দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়ে সচিব মো. শাহ কামাল, দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিপ্তরের পরিচালক রিয়াজ আহমেদ, জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি অ্যাডভোকেট সৈয়দ শামস-উল-আলম হিরু, পুলিশ সুপার মো. আশরাফুল ইসলাম প্রমুখ।

পরে মন্ত্রী বাদিয়াখালী ও বোয়ালী ইউনিয়নের ৫শ’ বন্যা দুর্গত পরিবারের মধ্যে চালসহ নানা ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন।

মতামত.........